খেলার মাঠে সবার আগে
Nsports-logo

মঙ্গলবার, ২১শে মে ২০২৪

১৮টি হলুদ কার্ড দেখানো সেই রেফারিকে বাড়ি পাঠালো ফিফা

0

“ফিফার উচিত গুরুতর এই বিষয়গুলোতে আরো মনোযোগ দেওয়া। এমন গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে এই ধরনের রেফারিদের ম্যাচ পরিচালনা করার দায়িত্ব দেওয়া উচিত নয়” কোয়ার্টার ফাইনালে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে জয়ের পর কথাগুলো বলেছিলেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক লিওনেল মেসি। ফিফাও এবার তার পক্ষে রায় দিলো।

আর্জেন্টিনা এবং নেদারল্যান্ডসের মধ্যকার কোয়ার্টার ফাইনালে রেকর্ড ১৮টি হলুদ কার্ড দেখানো স্প্যানিশ রেফারি মাতেউ লাহোজ কে দেশে পাঠিয়ে দিয়েছে ফিফা। চলছি বিশ্বকাপে আর কোনো ম্যাচে তাকে আর রেফারির দায়িত্ব পালন করতে দেখা যাবে না।

২০০৬ সালে নেদারল্যান্ডস-পর্তুগাল ম্যাচে সর্বমোট ১৬টি কার্ড দেখানোর রেকর্ড ছিলো যেটা বিশ্বকাপ ইতিহাসে সর্বোচ্চ ছিলো। সে ম্যাচের চিত্র অবশ্য অনেক ভয়ংকর ছিলো, মুহুর্মুহু ফাউলের কারণে রেফারি বাধ্য হয়েছিলো কার্ডগুলো দেখাতে। কিন্তু নতুন রেকর্ড হওয়া আর্জেন্টিনা এবং নেদারল্যান্ডসের ম্যাচে ততটাও ব্যাটেল বা নিয়মভঙ্গ করতে দেখা যায়নি। বরং একটু বাড়াবাড়িই করেছিলেন রেফারি।

এইদিন দেখানো ১৮ টি কার্ডের মধ্যে ১০ টিই ছিলো আর্জেন্টাইনদের বিপক্ষে। যার মধ্যে ২ টি আবার আর্জেন্টাইন কোচ এবং সহকারী কোচ দেখেছে। এছাড়া ডাচ বেঞ্চ থেকেও একজন কার্ড দেখেছে। কার্ডের কারণে সেমি ফাইনালে খেলা হবে না আর্জেন্টাইন ফুলব্যাক গঞ্জালো মন্টিয়েল এবং মার্কোস আকুনার।

এর আগেও অবশ্য বহুবার বিতর্কে জড়িয়েছেন স্প্যানিশ এই রেফারি মাতেউ লাহোজ। তার বিরুদ্ধে একাধিকবার অভিযোগ করেছে লা-লীগার অনেক ক্লাব। রিয়াল মাদ্রিদের পক্ষ নেওয়ার দুর্নাম বহুবছর ধরেই আছে তার কাঁধে। এছাড়া বার্সেলোনা এবং সেভিয়ার প্লেয়ারদের খুব অল্পতে কার্ড শো করা, সীদ্ধান্ত বিপক্ষে দেওয়া, পেনাল্টি না দেওয়া সহ আছে নানা অভিযোগ।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy